সাহিত্য সভা

রোহিঙ্গা গণহত্যার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড়

নিউজ ফরএভার24 সাহিত্য সভা

রোহিঙ্গা গণহত্যার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড়

রোহিঙ্গা গণহত্যার প্রতিবাদে কাব্যের অঙ্গণে কবি-সাহিত্যকরা কলমের ক্ষুরধারে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড় তুললেন #রাজশাহী_সাংস্কৃতিক_কেন্দ্রে।

 

 

 

 

আরাকানের ডাক
জসিম উদ্দিন বিজয়

নাফ নদে সৈকতে রক্তের লহরী,
চুপচাপ খেলা দেখে মহাকাল প্রহরী।
কেঁদে কেঁদে থেমে যায় আসমানে রুদ্র,
সারি সারি লাশে নর-নারী শিশু ক্ষুদ্র।
কাটা শির কাটা হাত কশেরুকা পাঁজরা,
কামানের ঝংকারে করোটিও ঝাঁঝরা।
নিভু নিভু প্রাণ শিখা চিৎকার ক্রন্দন,
ধুক ধুক করে বুকে হৃদয়ের স্পন্দন।
লেলিহান দাবানলে নিঃশ্বাস বন্ধ,
বাতাসেও ভাসে পোঁড়া চামড়ার গন্ধ।

সাজ সাজ সজ্জায় তাজা প্রাণ হরণী,
এই ঘোর তমসায় চুপ কেন ধরণী ?
উল্লাসে মেতে উঠে নরাধম শয়তান,
মুসলিম খুন করে গায় তারা জয়গান।
রাখাইনে লহুজল তোলে দোল কম্পনে,
অঞ্জলি নিতে আয় রক্তের চুম্বনে!


আর নয় খুনলীলা নিপীড়ন জ্বালাতন,
ভাঙ্ ঘোর জুলুমের মসনদ পাটাতন।
গজনীর মহাবীর মাহমুদ আয় রে
আরাকানে মজুলুম ডাকে শোন্ হায় রে!
কেল্লায় জাগ্ ফের বঙ্গের তিতুমীর
হুংকার দিয়ে আয় পাগড়ীতে বেঁধে শির।
চেঙ্গিস-সামুরাই-নাৎসি ও মাহাথির
বার্মায় চলে আয় রণ সাজে মহাবীর।
খুনিদের শির নিবে ঢেলে দিবে লাল খুন!
তিলে তিলে প্রাণ দিলে আসবেনা ফাল্গুন!
ঘুমভোলা উদাসীন শোন্ শোন্ পেতে কান
জালিমের দাদ নিতে ডাকে ঐ আরাকান।

শুধু নয় আরাকানে দেশে দেশে লস্কর
উন্মাদে খুনে মাতে ঘাতকের তস্কর!
চুপ করে মাথা গুজে আর কত সইবি ?
যুগে যুগে নিপীড়নে মুখ বুঁজে রইবি ?
সাইমুম তোল ফের আরবের সাহারায়,
আকসায় জেগে থাক রাত দিন পাহারায়। কারবালা যালযালা এখনো তো ভুলি নাই
আরাকানে খুন দেখে কম্পনে দুলি তাই,
চল যাই বার্মায় নাফ নদী পেরিয়ে
টাইফুন গতি বেগে আয় আয় বেরিয়ে।
যাব আয় জেদ্দায়, দজলার ইরাকে
বজ্রের কষাঘাতে পিশাচের ব্যারাকে।
আকসা ও কাশ্মীর, আফগান-সিরিয়া,
ক্ষত্রিয় খুনে চল্ লাল করি দরিয়া।
বাজা ঢোল নহবত ঝংকারে ঝল্লর,
ছিঁড়ে ফেল হুংকারে কণ্টক বল্লর।
ঝড় তোল কম্পনে সাইরেন ঝঞ্ঝায়
অভিমুখে বুক ঠুকে অসি তোল পাঞ্জায়।

রচনাকালঃ-
১২ অগ্রহায়ণ, ১৪২৩
কাব্যকুটির, মেহেরচণ্ডী, রাজশাহী।


ফটোগ্যালারী