সাক্ষাৎকার

দানবীর, শিক্ষানুরাগী আলহাজ্ব মোঃ আবদুস সাত্তার ভুঁইয়া

নিউজ ফরএভার24 সাক্ষাৎকার

দানবীর, শিক্ষানুরাগী আলহাজ্ব মোঃ আবদুস সাত্তার ভুঁইয়া

শংকুচাইল গ্রামের বিশিষ্ট দানবীর,শিক্ষানুরাগী মোঃ আবদুস সাত্তার ভুঁইয়া। পিতা- মরহুম রজ্জব আলী ভুঁইয়া, মাতা- মরহুমা শামছুন নাহার বেগম। গ্রাম- শংকুচাইল, থানা- বুড়িচং, জেলা- কুমিল্লা। তিনি ১৯৬০ সালে কুমিল্লা জেলা স্কুল থেকে এসএসসি, কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজ থেকে এইচএসসি এবং ১৯৬৫-৬৬ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অনার্স, মাস্টাস করেছেন। ২১ বছর ব্যাংকে চাকরি করেছেন। প্রায় ১৫ বছর গার্মেন্টস রপ্তানি বাণিজ্যে ছিলেন। বুড়িচং এবং ব্রাহ্মণপাড়া উপজেলায় অনেক দিন ধরে কাজ করছেন। তিনি ৩০ বছর যাবৎ জনগণের সেবা করে যাচ্ছেন। গরীব দুঃখী মানুষকে ঘর বাড়ি দিয়েছেন। টিউবয়েল দিয়েছেন। টাকা পয়সা দিয়ে সহযোগিতা করেছেন। মসজিদ, মাদরাসা, মক্তব, স্কুল, কলেজ করেছেন। যে যখন তার কাছে গেছে তাকেই তিনি সহযোগিতা করেছেন।

 

তার উদ্দেশ্যে উৎসর্গীকৃত কবিতা এখানে তুলে ধরা হলঃ


তিলে তিলে শেষ
♣ মুহাম্মদ নাজমুল হাসান
-----------------------------

তিলে তিলে শেষ হয়েছি
হরেক রকম কাজে
চেয়ে দেখি সময় তো নাই
বিদায় ঘন্টা বাজে

সারা জীবন মানব সেবায়
করলাম আমি পার
যখন যেথায় ডাক পরেছে
যা লেগেছে যার

গরীব দুঃখী মানুষগুলোর
ঘর ছিল না থাকার
অনেক ছিল কষ্ট তাদের
বিশাল যে তার আকার

ছেলে-মেয়ে বলে,
মোদের জন্য করলে না তো কিছু
সকল মানুষ টাকার জন্য
ঘুরছে তোমার পিছু

আমার এখন কিছুই তো নাই
শূণ্য এবং রিক্ত
অশ্রু সজল মানুষগুলোর
ভালোবাসায় সিক্ত

এখনও যখন দেখে আমায়
কোন পাড়ার লোকে
ডাক পরে যায় সকাল দুপুর
শত মানুষ জোটে

চাই না আমি দুনিয়াদারি
লক্ষ টাকার গাড়ি
গরীব দুঃখীর ঘর হয়ে যাক
আমার শূণ্য বাড়ি

এ দুনিয়া দু’দিনের ভাই
কিছুই তো আর থাকবে না
ঘুমিয়ে যাবে, হারিয়ে যাবে
আর কখনও ফিরবে না

** দানবীর আবদুস ছাত্তার ভুইয়া’র উদ্দেশ্যে উৎসর্গীকৃত


ফটোগ্যালারী